Prashant Kishor Prediction: প্রশান্ত কিশোরের ভবিষ্যদ্বাণী ‘ফ্লপ’, তবে কোনগুলি মিলল জেনে নিন

Prashant Kishor Prediction: লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে পিকের ভবিষ্যদ্বাণী ভুল প্রমাণিত হল

 

হাইলাইটস:

  • একাধিকবার ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে
  • তবে এবারের লোকসভা নির্বাচনে পিকের ভবিষ্যদ্বাণী কার্যত ‘ফ্লপ’
  • কিন্তু কোনগুলি মিলল জেনে নিন

Prashant Kishor Prediction: সম্প্রতি লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে একাধিকবার ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন বিখ্যাত ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর ওরফে পিকে। তবে এবার তাঁর ভবিষ্যদ্বাণী কার্যত ‘ফ্লপ’ প্রমাণিত হল। গতকাল ফলাফল প্রকাশ হওয়ার পর থেকেই সেই হিসাবও কষতে বসে গেছেন সকলে। কারণ ২০২১ সালে বাংলার বিধানসভা নির্বাচন নিয়ে যে ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন পিকে, তা অক্ষরে অক্ষরে মিলে গিয়েছিল।

We’re now on WhatsApp – Click to join

তবে এবারের লোকসভা নির্বাচনে পিকের ভবিষ্যদ্বাণী কার্যত ‘ফ্লপ’। ভোটকুশলীর ভবিষ্যদ্বাণী ফ্লপ হতেই হইচই পড়ে গেছে রাজনৈতিক মহলে। তবে ঠিক কোন কোন কথা মিলল তাঁর? আর পিকের কোন ভবিষ্যদ্বাণীর সঙ্গেই বা বাস্তবের ফলের দূর-দূরান্তেও মিল রইল না?

গত মাসেই বিখ্যাত ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোর বলেছিলেন, এবারের লোকসভা নির্বাচনে পশ্চিমবঙ্গে এক নম্বর দল হিসাবে উঠে আসবে বিজেপি। শুধু তাই নয়, বাংলায় ভালো ফল করবে তাঁরা। তিনি এও বলেছেন, অনেকেই হয়তো অবাক হয়ে যাবেন, কিন্তু তাঁর হিসাব অনুযায়ী চব্বিশের লোকসভায় বিজেপি এক নম্বর দল হিসাবে উঠে আসবে শুধু বাংলা নয়, দেশের মধ্যেও।

We’re now on Telegram – Click to join

কিন্তু ভোটের ফল প্রকাশ হতেই চিত্রটা যেন পাল্টে গেল। এবারের লোকসভা নির্বাচনে বাংলায় দুর্দান্ত ফল করেছে তৃণমূল কংগ্রেস। তাঁরা পেয়েছে ৪২-টির মধ্যে ২৯টি আসন। এদিকে বিজেপির ঝুলিতে এসেছে ১২টি আসন। কংগ্রেসকে মাত্র একটি আসন পেয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে। তবে

সিপিএমের খাতা কার্যত শূন্য। ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনের থেকেও অত্যন্ত খারাপ ফল করেছে বিজেপি। ২০১৯ সালে বিজেপির জেতা আসন ছিল ১৯টি। সেই হিসাবে পশ্চিমবঙ্গ নিয়ে ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোরের ভবিষ্যদ্বাণী সম্পূর্ণ ব্যর্থ প্রমাণিত হল।

অন্যদিকে প্রশান্ত কিশোর আরও বলেছিলেন যে, পূর্ব এবং দক্ষিণ ভারতে নাকি ভালো ফল করবে বিজেপি। দক্ষিণ ভারতের তামিলনাড়ুর মতো রাজ্যেও বিজেপির ভোটের হার অনেক বেশি হবে বলেই মনে করেছিলেন তিনি। এমনকি ভোট শতাংশে বিজেপি ডবল ডিজিটও পার করতে পারবে। শুধু তাই নয়, বিজেপি প্রথম বা দ্বিতীয় স্থানে উঠে আসতে পারে তেলঙ্গানার মতো রাজ্যেও।

Read more:- লোকসভা নির্বাচনের মাঝেই হঠাৎ কেন একুশের বিধানসভায় তৃণমূল কংগ্রেসের ফলাফল মনে করিয়ে দিলেন পিকে?

এবারের লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলে দেখা গিয়েছে, এখানেও সম্পূর্ণ ফেল পিকের ভবিষ্যদ্বাণী। এমনকি তামিলনাড়ুতে তো খাতাই খুলতে পারেনি বিজেপি। সেখানে স্টালিনের ডিএমকে ২২টি আসনে জয়ী হয়েছে এবং কংগ্রেস জিতেছে ৯টি আসনে।

তবে তেলঙ্গানায় বিজেপির ফলাফল নিয়ে পিকের ভবিষ্যদ্বাণী কিন্তু অক্ষরে অক্ষরে মিলে গিয়েছে। দক্ষিণের এই রাজ্যে এক নম্বর দল হিসাবে উঠে এসেছে বিজেপি। তেলঙ্গানায় বিজেপিও ৮টি আসন পেয়েছে এবং কংগ্রেস ৮টি আসনে জিতেছে।

এদিকে ওড়িশাতেও পিকের করা ভবিষ্যদ্বাণী পুরো মিলে গিয়েছে। ওড়িশাতেও এক নম্বর দল হিসাবে উঠে এসেছে বিজেপি। সেখানে ২১টি আসনের মধ্যে বিজেপি একাই পেয়েছে ২০টি আসন।

যদি লোকসভা নির্বাচনের সার্বিক ভোটের হার হিসাব করা হয়, তবে তাতেও মেলেনি ভোটকুশলী প্রশান্ত কিশোরের ভবিষ্যদ্বাণী। প্রশান্ত কিশোর বলেছিলেন যে, বিজেপি ২০১৯ সালের প্রাপ্ত রেকর্ডও ভেঙে দিতে পারে। অর্থাৎ তাদের আসন সংখ্যা ৩০৩ বা তার বেশিও হতে পারে। কিন্তু ভোটের পরিসংখ্যান হিসাবে দেখা যাচ্ছে, NDA জোট পেয়েছে ২৯২ আসন। আর বিজেপি একা পেয়েছে ২৪০ আসন। অর্থাৎ ম্যাজিক ফিগারও পেরোতে পারেনি বিজেপি। শরিক দলরা যদি NDA জোটের সঙ্গে থাকে তবেই ফের দিল্লির মসনদে তৃতীয়বারের জন্য প্রধানমন্ত্রীর পদ আলোকিত করতে পারবেন নরেন্দ্র মোদী।

এইরকম লোকসভা নির্বাচন বিষয়ক প্রতিবেদন পেতে ওয়ান ওয়ার্ল্ড নিউজ বাংলার সাথে যুক্ত থাকুন।

Sanjana Chakraborty

Professional Content Writer

Leave a Reply

Your email address will not be published.