Rahul Gandhi and Priyanka Gandhi Vadra: ওয়েনাড ছাড়লেন রাহুল গান্ধী, এই কেন্দ্র থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন তাঁর বোন প্রিয়ঙ্কা গান্ধী বঢরা

Rahul Gandhi and Priyanka Gandhi Vadra: চব্বিশের লোকসভা নির্বাচনে ওয়েনাড এবং রায়বরেলি থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছিলেন রাহুল গান্ধী

 

হাইলাইটস:

  • উনিশের লোকসভা নির্বাচনে ওয়েনাড ও আমেঠি থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন রাহুল গান্ধী
  • উনিশের নির্বাচনে আমেঠিতে বিজেপির স্মৃতি ইরানির কাছে হেরে যান রাহুল
  • সেইসময় যে ওয়েনাড তাঁর সম্মান রক্ষা করেছিল, এবার সেই আসনই ছাড়লেন রাহুল

Rahul Gandhi and Priyanka Gandhi Vadra: চব্বিশের লোকসভা নির্বাচনে দুটি আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন রাহুল গান্ধী। দুটি আসনেই বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন তিনি। রাহুল গান্ধী কোন আসনের সাংসদ থাকবেন? সেই নিয়ে গত কয়েকদিন ধরেই জল্পনা চলছিল। অবশেষে কংগ্রেসের তরফে রাহুলের সিদ্ধান্তের কথা জানান হল। কেরলের ওয়েনাড আসনটি ছাড়ছেন রাহুল গান্ধী। রাহুল গান্ধীর ছেড়ে দেওয়া আসনে কাকে প্রার্থী করতে চলেছে কংগ্রেস? সেই জল্পনারও অবসান হয়েছে। রাহুল নিজেই সে কথা জানিয়েছেন, তাঁর ছেড়ে দেওয়া আসন থেকে অর্থাৎ ওয়েনাড লোকসভা কেন্দ্র থেকে কংগ্রেসের টিকিটে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন তাঁর বোন প্রিয়ঙ্কা গান্ধী বঢরা।

We’re now on WhatsApp – Click to join

চব্বিশের লোকসভা নির্বাচনে কেরলের ওয়েনাড ও উত্তর প্রদেশের রায়বরেলি, দুটি লোকসভা কেন্দ্র থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন রাহুল। দুটি আসনেই জয় পান তিনি। ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনেও দুটি আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন রাহুল। ওয়েনাড এবং আমেঠি। ২০০৪ সাল থেকে আমেঠি লোকসভা কেন্দ্রের সাংসদ ছিলেন রাহুল। কিন্তু, উনিশের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির স্মৃতি ইরানি হারিয়ে দেন তাঁকে। সেইসময় রাহুলের সম্মান বাঁচিয়েছিল ওয়েনাড। কেরলের এই আসন থেকে জিতেই সংসদে ফের পা রাখেন রাহুল গান্ধী।

We’re now on Telegram – Click to join

এ বারের লোকসভা নির্বাচনে প্রথমে ওয়েনাড থেকেই মনোনয়ন জমা দেন রাহুল। তখনও কংগ্রেস রায়বরেলি আসনে প্রার্থীর নাম ঘোষণা করেনি। ওয়েনাডের ভোটগ্রহণ পর্ব মেটার পর রায়বরেলি লোকসভা কেন্দ্রে কংগ্রেসের প্রার্থী হিসেবে রাহুল গান্ধীর নাম ঘোষণা করা হয়। এই নিয়ে রাহুলকে কটাক্ষ করে বিজেপি নেতৃত্ব বলে, রাহুল দুটি আসন থেকে দাঁড়াতেই পারেন। কিন্তু, ওয়েনাডের ভোট শেষ না হওয়া পর্যন্ত তিনি রায়বরেলি থেকে প্রার্থী হওয়ার কথা ঘোষণা করেননি। ফলে রাহুল ওয়েনাডবাসীর সঙ্গে একপ্রকার প্রতারণা করেছেন বলে দাবি করে বিজেপি।

ভোটের ফলাফল সামনে আসার পর দেখা যায়, ওয়েনাড এবং রায়বরেলি, দুটি আসনেই বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন রাহুল গান্ধী। রায়বরেলি কেন্দ্রের দীর্ঘদিনের সাংসদ ছিলেন সনিয়া গান্ধী। এবার তিনি প্রার্থী হননি। মায়ের ছেড়ে যাওয়া আসনই ধরে রাখলেন রাহুল। আর উনিশের লোকসভায় যে আসন তাঁর সম্মান রক্ষা করেছিল, সেই ওয়েনাডের আসন ছেড়ে দিলেন।

সোমবার কংগ্রেস সভাপতি মল্লিকার্জুন খাড়্গের বাসভবনে বৈঠক হয়। নিয়ম অনুযায়ী, লোকসভা নির্বাচনের ফল প্রকাশের ১৪ দিনের মধ্যে একটি আসন ছেড়ে দিতে হবে রাহুল গান্ধীকে। কংগ্রেস নেতৃত্বের সাথে বৈঠক শেষে মল্লিকর্জুন খাড়্গে জানান, ওয়েনাড আসনটি ছাড়ছেন রাহুল।

Read more:- প্রকাশিত হল কংগ্রেসের প্রথম প্রার্থী তালিকা, রাহুল গান্ধী কোথা থেকে লড়ছেন?

রাহুল ওয়েনাড ছাড়লে তাঁর বোন প্রিয়ঙ্কাকে সেখানে প্রার্থী করার দাবি আগেই উঠেছিল। আর সেটাই হল। ওয়েনাড থেকে প্রিয়াঙ্কার প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন জানিয়ে রাহুল বলেন, ওয়েনাড এবং রায়বরেলি এবার দু’জন সাংসদ পেতে চলেছে। অন্যদিকে, প্রিয়ঙ্কা বলেন, “ওয়েনাডের মানুষকে রাহুলের অভাব অনুভব করতে দেব না।” ওয়েনাডে উপনির্বাচনের ফলাফল কী হবে, তা এখন সময়ের অপেক্ষা। তবে প্রিয়ঙ্কা গান্ধী বঢরা ওয়েনাড থেকে জিতলে সংসদে একসঙ্গে দেখা যাবে ভাই-বোনের জুটি।

দেশের গুরুত্বপূর্ণ প্রতিবেদন পেতে ওয়ান ওয়ার্ল্ড নিউজ বাংলার সাথে যুক্ত থাকুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.