Hero Xoom 160: প্রথম ভারতীয় কোম্পানি হিসেবে বড় স্কুটারের বাজারে পা রাখতে চলেছে Hero MotoCorp! দমদার ইঞ্জিন ও জমকালো লুক নিয়ে আসছে Hero Xoom 160

Hero Xoom 160: আর পাঁচটা সাধারণ স্কুটির থেকে অনেকটাই আলাদা হতে চলেছে Hero Xoom 160

হাইলাইটস:

  •  Hero Xoom 160 একটি ম্যাক্সি ডিজাইনের স্কুটার
  •  বাইকের মতো শক্তিশালী এই স্কুটির ইঞ্জিন
  •  এর আগে কোনও ভারতীয় কোম্পানির পক্ষ থেকে এমন স্কুটার দেখা যায়নি

Hero Xoom 160: অবশেষে বহু প্রতীক্ষিত Hero Xoom 160 স্কুটার উন্মোচন করল Hero MotoCorp। বড় স্কুটারের বাজারে এটি Hero-র প্রথম প্রোডাক্ট। যেখানে বাইকের সমান শক্তিশালী ইঞ্জিন মিলবে। বিশ্ব বাজারে খুব কম সংস্থাই এমন স্কুটার লঞ্চ করেছে।

We’re now on WhatsApp – Click to join

ইউরোপ ও আমেরিকার খুব কম দেশেই এই ম্যাক্সি স্কুটার বিক্রি হয়। ভারতেও এই স্কুটার বিক্রি হয়, তবে তা জাপানি সংস্থা Yamaha বিক্রি করে। প্রথম ভারতীয় টু হুইলার প্রস্তুতকারক সংস্থা হিসাবে এই স্কুটার আনতে চলেছে Hero।

Hero Xoom 160-এর সামনে রয়েছে বড় উইন্ডস্ক্রিন এবং ‘V’ শেপ হেডলাইট যা সাধারণত অ্যাডভেঞ্চার মোটরসাইকেলে দেওয়া হয়। এছাড়াও রয়েছে সিঙ্গেল পিস সিট এবং বড় ফ্লোরবোর্ড। ইঞ্জিনের ক্ষেত্রে এই স্কুটারে পাবেন 156 সিসি সিঙ্গেল সিলিন্ডার লিকুইড কুল্ড ইঞ্জিন। ভারসাম্যর জন্য থাকবে টেলিস্কপিক ফর্ক সাসপেনশন। গাড়ির দু চাকাতেই মিলবে ডিস্ক ব্রেক। থাকবে অ্যান্টি লক ব্রেকিং বা ABS। 14 ইঞ্চি টায়ার মিলবে এই ম্যাক্সি স্কুটারে।

Hero Xoom 160-এ ফিচার্স থাকবে LED হেডলাইট, টেল লাইট, ডিজিটাল ইনস্ট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, USB চার্জিং, ব্লুটুথ কানেক্টিভিটি, স্মার্ট কি ইত্যাদি। জানা গিয়েছে, আগামী 6 মাসের মধ্যে এই স্কুটার লঞ্চ হতে পারে। অর্থাৎ এ বছরই শোরুমে দেখা যাবে Hero Xoom 160।

Hero Xoom 160-এর দাম কত?

এই ম্যাক্সি স্কুটারের দাম থাকতে পারে 1.3 লাখ টাকা (এক্স-শোরুম)। এটি ছাড়াও 125 সিসির একটি Hero Xoom আনতে চলেছে Hero MotoCorp। যার ইঙ্গিতও দিয়েছে সংস্থা।

গাড়ি ও বাইক সংক্রান্ত আরও প্রতিবেদন পেতে ওয়ান ওয়ার্ল্ড নিউজ বাংলার সাথে যুক্ত থাকুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.